কুতুবদিয়ায় লবণমাঠ দখলের ঘটনার মুলহোতা নেজামুল হক কারাগারে

Nezamul-Hoque_n.jpg

বার্তা পরিবেশক :

কুতুবদিয়ায় লবণের মাঠ দখলের পাঁয়তারার অভিযোগে দায়েরকৃত মামলার মুলহোতা নেজামুল হককে কারাগারে প্রেরণ করেছে আদালত। তিনি বিএনপির লেমশীখালী ইউনিয়নের প্যানেল চেয়ারম্যান ও বর্তমান ৯নং ওয়ার্ড মেম্বার ও কুতুবদিয়া উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম-আহবায়ক।
জানা গেছে, আটক ব্যক্তিকে প্রধান আসামী করে ২০ ডিসেম্বর ভুক্তভোগী স্থানীয় মো. কালু বাদী হয়ে কুতুবদিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করে। যার নং-১৩। উক্ত মামলায় গতকাল রবিবার বিজ্ঞ আদালত তার জামিন না মঞ্জুর করে কারাগারে প্রেরণের আদেশ দেয় অভিযুক্ত নেজামুল হককে।
মামলার সুত্রে জানা যায়, গত ১৮ ডিসেম্বর বেআইনী জনতা দলবদ্ধ হয়ে জখম, চুরি, শ্লীলতাহানী ও ভয়ভীতি দেখার অপরাধে নেজামুল হক’সহ আরো ৭ জনকে আসামী করে কুতুবদিয়া থানায় মামলা করে ভুক্তভোগী মো.কালু। মামলার অন্যান্য আসামীরা হলেন, দিদারুল হক, আতাউর রহমান, নুরুল ইসলাম, মোদাচ্ছের, এনাম,রুহুল কাদের ও আনোয়ার। মামলায় প্রধান আসামী নেজামুল হক আদালতে আত্ম-সমর্পন করলে আদালত তাকে কারাগারে প্রেরণের নিদের্শ দেন।
ভুক্তভোগী ও মামলার বাদী মো.কালু জানান, ঘটনার দিন কিছু বুঝে উঠার আগে নেজামুল হকের নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী আমাদের উপর হামলা চালায়। এতে আমাদের ৫/৭ জন আহত হয়। উক্ত ঘটনার প্রতিকার চেয়ে কুতুবদিয়া থানায় আমি মামলা দায়ের করি। মামলায় প্রধান আসামীকে বিজ্ঞ আদালত কারাগারে পাঠিয়েছেন গতকাল রবিবার।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top