অভিভাবক বেঁধে নির্যাতন: কাউকে আটক করেনি পুলিশ

teacher-98083.jpg

কক্সবাজার রিপোর্ট :

বেতন-ফি বাড়ানোর প্রতিবাদ করায় কক্সবাজারে অভিভাবককে বেঁধে নির্যাতনের ঘটনায় এখনো কাউকে গ্রেফতার কর হয়নি। তবে অভিযুক্তদের দ্রুত আইনের আওতায় আনার আশ্বাস দিয়েছে পুলিশ।

কক্সবাজার সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রণজিৎ কুমার বড়ুয়া জানান, ছয়জনের নাম উল্লেখ করে পাওয়া এজাহারটি মামলা হিসেবে লিপিবদ্ধ হয়েছে। মামলায় অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে পাঁচ-ছয়জনকে। ঘটনায় শিকার অভিভাবক আয়াত উল্লাহ বাদি হয়ে প্রধান শিক্ষক জহিরুল হককে প্রধান আসামি করে মামলাটি দায়ের করেন।

তিনি আরও জানান,  শিক্ষক কর্তৃক অভিভাবককে নির্যাতনের ঘটনাটি অত্যন্ত মর্মান্তিক। মামলা হওয়ার পর পুলিশ আসামীদের ধরতে অভিযানে নেমেছে। এ ঘটনার সাথে যারাই জড়িত তাদেরকে দ্রুত গ্রেপ্তার করা হবে।

এরআগে,সোমবার রাতে সদর থানায় ১২ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন নির্যাতিত আয়াতউল্লাহ। এতে অভিযুক্ত দুই শিক্ষকসহ ছয়জনের নাম উল্লেখ এবং বাকিদের অজ্ঞাত আসামি করা হয়।

রোববার, বেতন-ফি বাড়ানোর প্রতিবাদ করায়, আয়াতউল্লাকে হাত-পাঁ বেঁধে নির্যাতনের অভিযোগ ওঠে খরুলিয়া কেজি অ্যান্ড প্রি-ক্যাডেট স্কুলের শিক্ষকদের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় স্কুলের প্রধান শিক্ষকসহ তিনজনকে শোকজ দেয় উপজেলা প্রশাসন।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top