খালেদা জিয়ার মুক্তি না হলে জনগণ আর ঘরে বসে থাকবে না-শাহজাহান চৌধুরী

BNP.jpg

প্রেস বিজ্ঞপ্তি :
গণতন্ত্রের মাতা খালেদা জিয়াকে বন্দী রেখে সরকার আরো একটি নীলনকশার নির্বাচন করার ষড়যন্ত্র করছে। এই জন্য তারা খালেদা জিয়াকে মিথ্যা ও সাজানো মামলায় কারাগারে বন্দি রেখেও ক্ষান্ত হয়নি। তারা খালেদা জিয়াকে মানসিক ও শারীরিকভাবে আঘাত করতে তাকে সুচিকিৎসা থেকে বঞ্চিত করে রেখেছে। খালেদা জিয়ার মুক্তি ও সুচিকিৎসার দাবিতে কক্সবাজার জেলা বিএনপি আয়োজিত এক বিক্ষোভ সমাবেশে সভাপতির বক্তব্যে জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক সংসদ সদস্য শাহজাহান চৌধুরী একথা বলেন। গতকাল সোমবার বিকালে জেলা কার্যালয়ে এই বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
আওয়ামী লীগ পুরোপুরি জনবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে মন্তব্য করে তিনি আরো বলেন, জনগণের কাছে যাওয়ার কোনো জায়গা নেই তাদের । তারা নিশ্চিত, বিএনপি নির্বাচনে গেলে তাদের ভরাডুবি হবে। তাই তারা ষড়যন্ত্রমূলক এক তরফা নির্বাচনের পাঁয়তারা করছে। কিন্তু জনগণ তা কখনো মেনে নেবে না। গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের জন্য জনগণ খালেদা জিয়াকে মুক্ত দেখতে চায়। তাকে মুক্তি দেয়া না হলে জনগণ আর ঘরে বসে থাকবে না।’
জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক সংসদ সদস্য শাহজাহান চৌধুরীর সভাপতিত্বে এবং প্রচার সম্পাদক অধ্যাপক আকতার চৌধুরীর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এড. শামীম আরা স্বপ্না, পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক রাশেদ মো. আলী, জেলা বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক এম. মোকতার আহামদ ও আতাউল্লাহ বোখারী, সহ-দপ্তর সম্পাদক এড. হাসান ছিদ্দিকী, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি রাসেদুল হক রাসেল, জেলা যুবদলের যুগ্ম-সম্পাদক গিয়াস উদ্দীন আফসেল, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম-সম্পাদক আবছার কামাল, জেলা ছাত্রদলের সাংগঠনিক সম্পাদক শাহীনুল ইসলাম শাহীন, সহ-সভাপতি জাহেদুল ইসলাম লিটন ও ফারুক আজম, যুগ্ম-সম্পাদক আলা উদ্দীন রবিন, কক্সবাজার আইন কলেজ ছাত্রদলের সভাপতি মিজানুল আলম, কক্সবাজার কলেজ ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক সাইদু সিকদার।
সমাবেশের শুরুতে পবিত্র কোরআন তেলোয়াত করেন জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম-সম্পাদক মোজাম্মেল হক। সমাবেশে সদ্য প্রয়াত জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি সিরাজুল হক বি.এ ও সদস্য সিরাজুল হক ডালিমের আত্মার মাগফেরাত কামনায় শোক প্রকাশ করা হয়।

Top