পেকুয়ায় গ্যাসের চুলায় প্রাণ গেল স্বামী-স্ত্রীর

download-2-10.jpg

পেকুয়া প্রতিনিধি :

পেকুয়ায় গ্যাসের চুলায় প্রাণ গেল স্বামী-স্ত্রীর। সিলিন্ডার থেকে গ্যাস লিক আউট হয়। এ সময় হঠাৎ আগুন ধরে যায়। মারাত্মক অগ্নিদদ্ধ হন একই পরিবারের তিনজন। স্বামী-স্ত্রী ও একমাত্র সন্তান ৪র্থ শ্রেনীর ছাত্র। স্থানীয়রা এ ৩ জনকে উদ্ধার করে পেকুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। সেখানে অবস্থার অবনতি হওয়ায় এদের চমেক হাসপাতালে প্রেরন করে। চমেক হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে তাদের স্থানান্তরিত করে। প্রায় ৫ দিন চিকিৎসার পর একই দিনে স্বামী ও স্ত্রী ২ জনেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন। নিহতরা হলেন পেকুয়া উপজেলার উজানটিয়া ইউনিয়নের পানপাড়া গ্রামের হোসাইন(৩৫)ও তার স্ত্রী দিলোয়ারা বেগম(৩২)। ২২ মে দুপুর ১২ টার দিকে চমেক হাসপাতালে দিনমজুর হোসাইনের মৃত্যু হয়।
একই দিন বিকেল ৪টার দিকে নিয়তির কাছে হার মানলেন তার স্ত্রী দিলোয়ারা বেগমেরও। তিনিও ওই হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে মৃত্যুবরন করে। অপরদিকে একমাত্র ছেলে উজানটিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৪র্থ শ্রেনীর ছাত্র ওয়াহিদ নয়ন(১১)এর অবস্থাও সংকটময়। তার জীবন প্রদীপ মৃত্যুর সন্ধিক্ষনে। চিকিৎসক জানায়, আগুনে শরীরের ৬০% ঝলসে যায়। ওয়াহিদ নয়ন চমেকের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন। তবে অচেতন অবস্থায় তার জীবন নিভূ নিভূ অবস্থা। যে কোন মুহুর্তে ওই ছাত্রও পৃথিবীর আলো বাতাস মায়া মমতা ত্যাগ করে নিভে যেতে পারে জীবন প্রদীপ।
এদিকে দিনমজুর হোসাইন ও তার স্ত্রী দিলোয়ারা বেগমের মৃত্যু হয়েছে। এ সংবাদ এলাকায় জানাজানি হলে মানুষের মধ্যে শোকের ছায়া নেমে আসে। মানুষ চোখের জল ধরে রাখতে পারে নি। একটি হতদরিদ্র পরিবারের এ নির্মম ট্র্যাজেড়ি মানুষকে শোকে স্তব্দ করে দেয়। নিয়তির কাছে প্রার্থনা করছেন যেন নিষ্পাপ ওয়াহিদ নয়নের আরোগ্য দেয় মহান সৃষ্টিকর্তা।

Top